মীরজাফরের দোসররা এখনো ষড়যন্ত্র করছে- আ.স.ম. ফিরোজ

  • আপডেট টাইম : নভেম্বর ২৭ ২০১৯, ১৯:০৭
  • 101 বার পঠিত
মীরজাফরের দোসররা এখনো ষড়যন্ত্র করছে- আ.স.ম. ফিরোজ

ডেস্ক রিপোর্ট।। জাতীয় সংসদের সরকারি প্রতিষ্ঠান কমিটির সভাপতি সাবেক চীফ হুইপ আ.স.ম. ফিরোজ বলেছেন, বেঈমানী করে মীর জাফর যে ভাবে নবাব সিরাজ উদ দৌলাকে হত্যা করে এদেশকে পরাধীনতার শিকল পড়িয়েছিল তেমনি যুদ্ধ বিধস্ত বাংলাদেশেকে পূর্ণগঠন করার প্রাক্কালে ১৯৭৫ সালের ১৫ আগষ্ট পাকিস্তানের দোসর স্বাধীনতা বিরোধিরা বঙ্গবন্ধুকে স্ব-পরিবারে হত্যা করে এদেশের অগ্রযাত্রাকে ধংশ করে দিয়েছিল। সেই মীর জাফরের দোসরারা এখনো ষড়যন্ত্র করছে। এরফলে বাংলাদেশ আবার পিছিয়ে পড়েছিল। জনগণের সহযোগিতায় ২০০৮ সালের নির্র্বাচনে আওয়ামী লীগ পূণরায় ক্ষমতায় এসে দেশকে আবার এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য বিভিন্ন প্রকল্প বাস্তবায়ন করে যাচ্ছে। দারিদ্র বিমোচনের জন্য সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনীর আওতায় ভিজিডি, ভিজিএফ, বয়স্কভাতা, অস্বচ্ছলদের ভাতা, আপদকালীন ভাতা, মুক্তিযোদ্ধাদের ভাতা বৃদ্ধিসহ বিভিন্ন প্রকল্প বাস্তবায়ন করে আসছে। প্রাথমিক ও মাধ্যমিক স্তরের সকল শিক্ষার্থীদের বিণামূল্যে পাঠ্য বই বিতরণ এবং শিক্ষা বৃত্তি চালু করা হয়েছে। বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ভৌত অবকাঠামোর যুগপযোগি উন্নয়ন করা হয়েছে। স্বাস্থ্য এবং কৃষি খাতে ব্যপক উন্নয়ন হয়েছে। আজ ফেড়ি করে ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ পৌঁছে দেয়া হচ্ছে। স্বপ্নের পদ্মা সেতু নির্মিত হচ্ছে। দেশের দক্ষিণাঞ্চলে বড় বড় প্রকল্প বাস্তবায়ন হচ্ছে। দেশে আজ চুরি, ডাকাতি, রাহাজানি নাই। মানুষ সুখে এবং শান্তিতে বসবাস করছে। এটা একমাত্র শেখ হাসিনার বলিষ্ট নেতৃত্বেরই ফসল। একজন সফল এবং দুর্নীতি বিরোধি প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শেখ হাসিনা বিশ্বের দরবারে আজ উন্নয়নের চমক প্রদীপ। অল্প সময়ে কী ভাবে একটি দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে সেটা দেখার জন্য বিশ্ব নেতৃবৃন্দ আজ বাংলাদেশে আসছে। বাংলাদেশ থেকে উন্নয়নের মডেল নিয়ে তাদের দেশেরও অগ্রগতি করছেন।
চন্দ্রদ্বীপ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আ.স.ম. ফিরোজ এই কথা বলেন।
প্রবীন আওয়ামী লীগ নেতা আমির হোসেন হাওলাদারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সম্মেলনে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, বাউফল উপজেলা যুবলীগের সাধারন সম্পাদক এস.এম. ফয়সাল আহমেদ, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি হারুন অর রশিদ, চন্দ্রদ্বীপ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এনামুল হক আলকাছ মোল্লা, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কাউন্সিলের সাবেক সভাপতি সামসুল আলম মিয়া, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মোশারেফ হোসেন খান, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মরিয়ম বেগম নিশু, উপজেলা চেয়ারম্যান আবদুল মোতালেব হাওলাদার, প্রমূখ। সম্মেলনে আমির হোসেন হাওলাদারকে সভাপতি এবং এনামুল হক আলকাচ মোল্লাকে সাধারন সম্পাদক করে ৫১ সদস্য বিশিষ্ট নতুন কমিটি ঘোষণা দেয়া হয়েছে।

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর

হালিমা খাতুন স্কুলের ভর্তি বিজ্ঞপ্তি, বরিশাল







ফেসবুক কর্নার

শিরোনাম
উন্নীত হচ্ছে সরকারি কর্মচারীদের গ্রেড ও বেতননির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবি ৬ মেয়হিন্দু সেজে দুই বিয়ে করলো ইউসুফ, অতঃপর…১০ মাসে আত্মহত্যায় মৃত্যু ১১ হাজার, করোনায় ৫ হবরিশালে ইশরাকের সামনে বিএনপির দুই গ্রুপের চেশেষ মুহুর্তে বিএনপির সমাবেশ স্থল পরিবর্তন করতথ্য গোপন করায় দু’বছর পর পদ হারালেন উপজেলা চেকলেজ-বিশ্বদ্যিালয়ে ভর্তির আগে ডোপ টেস্ট করা খালেদা জিয়া ও গয়েশ্বরের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি অবশেষে অবরোধ প্রত্যাহারমধ্যরাতে ঘুমন্তছাত্রদের উপর বাস শ্রমিকদের হঅভিজিৎ হত্যা মামলায় ৫ জনের মৃত্যুদণ্ডবাস শ্রমিক কর্তৃক ববি ছাত্র ছুরিকাঘাত ॥ ছাত্কলাপাড়ায় আওয়ামী লীগ প্রার্থী বিপুল চন্দ্র হা১৯ বছর পর ধবল ধোলাই
%d bloggers like this: