ব্যবসায়ী আলাউদ্দিন হত্যাকান্ড

মনপুরায় ব্যবসায়ীর টাকা লোপাট করে নিজেদের বাঁচাতে দৌড়-ঝাঁপ শুরু

  • আপডেট টাইম : সেপ্টেম্বর ১৩ ২০২০, ১১:৫৮
  • 106 বার পঠিত
মনপুরায় ব্যবসায়ীর টাকা লোপাট করে নিজেদের বাঁচাতে দৌড়-ঝাঁপ শুরু

মনপুরা (ভোলা) প্রতিনিধি \
ভোলার মনপুরায় চাঞ্চল্যকর ডাচ্ বাংলা ব্যাংক এজেন্ট আলাউদ্দিন হত্যাকান্ডের পর এজেন্ট ব্যাংকে থাকা লাখ লাখ টাকা লোপাট করে শ্বশুর, দেবররা ও প্রতিবেশী শামীম মাষ্টার। ওই লোপাট হওয়া টাকা দিয়ে নিজেদের বাঁচাতে ব্যস্ত হয়ে পড়েছেন শামীম মাষ্টারের সহযোগিতায় শ্বশুর ও দেবররা এমন অভিযোগ করেছেন নিহত ব্যবসায়ী আলাউদ্দিনের স্ত্রী শাহনাজ আক্তার রিতু ও সন্তানরা।

এদিকে লাখ লাখ টাকার লোপাটের সত্যতা মিলে উপজেলা চেয়ারম্যান, জেলা পরিষদের সদস্য, চার ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের শালিসী প্রতিবেদনে।

মৃত আলাউদ্দিনের স্ত্রী অভিযোগ করেন, আমার স্বামীর এজেন্ট ব্যাংকে থাকা লাখ লাখ টাকা লোপাট করে ওই টাকা দিয়ে ওরা হত্যাকান্ডটি ভিন্নখাতে প্রবাহিত করতে ষড়যন্ত্র শুরু করেছে। এমনকি একটি চাইনিজ রেস্টুরেন্টে বসে লাখ টাকা খরচ করে নিজেদের বাঁচাতে আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা গল্প বানিয়ে তিনজন সাংবাদিক দিয়ে সাংবাদিক সম্মেলন করেছে। ওরা হত্যার বিচার চায় না, ওরা নিজেদের বাঁচাতে চায়। স্বামী হত্যার মাস খানেক যেতে না যেতেই আটককৃত আসামীদের সাথে লেনদেন শুরু করে শ্বশুর ও দেবররা। ওদের সহযোগিতায় আটককৃত একের পর এক আসামী জামিনে বেরিয়ে আসে। এমনকি হত্যায় ব্যবহৃত ছুরি যে ডোবা থেকে উদ্ধার করা হয়েছে সেই ডোবাটি আলামত নষ্ট করার জন্য ভরাট করে ফেলে শামীম মাষ্টার। যখন আমি স্বামী হত্যার বিচার চাইতে প্রশাসন সহ সাংবাদিকদের দ্বারে দ্বারে যাচ্ছি তখন ওরা (শ্বশুর, দেবরা ও শামমী মাষ্টার) নিজেদের বাঁচাতে ব্যস্ত হয়ে পড়েছেন। এমনকি আমাকে নিয়ে মিথ্যা গল্প বানাচ্ছে।

তবে শামীম মাষ্টার, শ্বশুর ও দেবরা অভিযোগ অস্বীকার করে সাংবাদিকদের জানান, তারা হত্যা মামলার বিচার চান।

এই ব্যাপারে শালিসদার উপজেলা চেয়ারম্যান শেলিনা আকতার চৌধুরী, জেলা পরিষদের সদস্য একেএম শাহজাহান মিয়া, চার ইউপি চেয়ারম্যান যুগান্তরকে জানান, দীর্ঘ তদন্ত করে দেখা গেছে নিহত আলাউদ্দিনের রেখো যাওয়া টাকা-পয়সা তার ভাইরা অনিয়ম করেছে। তদন্তে যা অনিয়ম পাওয়া গেছে সেভাবে শালিসি প্রতিবেদন দেওয়া হয়েছে।

এই ব্যাপারে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পিবিআই অফিসার মোঃ কবির জানান, মামলাটি তদন্তাধীন। তদন্ত শেষ হলে প্রকৃত খুনি কারা তা বেরিয়ে আসবে।

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর







ফেসবুক কর্নার

শিরোনাম
জানুয়ারিতে ক্লাস শুরুর পরিকল্পনা৫ দিন ইন্টারনেটের গতি কিছুটা ধীর থাকতে পারেমা দুর্গার বিসর্জনে ছিল না শোভাযাত্রা-আনন্দ গলাচিপায় বেপজার রপ্তানী প্রক্রিয়জাত অঞ্চল ককরোনায় পর্যটকদের কাছে কুয়াকাটার আকর্ষণ একটুপটুয়াখালীতে র‌্যাংগস ইন্ডাস্ট্রিজের র‌্যাংজেলা পরিষদ সদস্য ফিরোজ শিকদার কলাপাড়ার দূর্সত্যিকারের জনগনের পুলিশ হতে চাই : প্রতিষ্ঠাবকাঠালিয়ায় বিষখালী নদীর চর থেকে জেলের লাশ উদ্নলছিটিতে কিশোরীকে নিপীড়নের পর গা ঢাকা দিলেন গলাচিপায় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভবণের শপটুয়াখালীতে বসতবাড়ি থেকে উচ্ছেদ চেষ্টার বিবরিশালে ফিল্মী স্টাইলে দেড় লক্ষাধিক টাকার পণমনপুরার মেঘনায় নিঝুম দ্বীপের ১১ জেলে আটক/ প্রবিজয়া দশমী আজ
%d bloggers like this: