বরিশাল জেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ আনোয়ার হোসেনকে নিয়ে চক্রান্ত

  • আপডেট টাইম : নভেম্বর ৩০ ২০১৯, ০৪:৪৪
  • 1282 বার পঠিত
বরিশাল জেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ আনোয়ার হোসেনকে নিয়ে চক্রান্ত

স্টাফ রিপোর্টার \ বরিশালে এসেই যিনি শিক্ষা অফিসকে দুর্নীতিমুক্ত করার যুদ্ধে নামেন। ঘুষ মুক্ত সেবা প্রদানে দৃঢ় প্রতিজ্ঞ জেলা শিক্ষা অফিসার বরিশাল। যার অবিচাল এই প্রতিজ্ঞার কারণে অফিসের সন্দেহযুক্ত কর্মচারীদের মধ্যে স্বেচ্ছায় বদলী হতে হিড়িক পড়ে যায়। তিনি বরিশাল মাধ্যমিক জেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ আনোয়ার হোসেন। উচ্চ শিক্ষিত এই ভদ্রলোকের হাত দিয়ে কয়েকশত শিক্ষক এমপিও ভ‚ক্ত হয়েছে একটি টাকাও দিতে হয়নি। সেই সৎ শিক্ষা অফিসারকে এখন বদলী করতে মিশনে নেমেছে একটি চক্র। প্রথমে নানাভাবে হুমকি, তারপর মিথ্যে এবং হয়রানীমূলক সংবাদ প্রচার করে মানসিকভাবে তার মনোবল ভেঙ্গে দিতে সক্রিয় ঐ চক্রটি। তাকে বরিশাল থেকে বদলীরও চেষ্টা করা হচ্ছে বলে জানা গেছে।
মোঃ আনোয়ার হোসেন ২০১৭ সালের ফেব্রæয়ারি মাসে বরিশাল জেলা শিক্ষা অফিসে যোগদান করেন। তিনি ২০০৫ সালে বরগুনা জেলায়,২০০৬ সালে পটুয়াখালি জেলায়, ২০১৫ সালে পাবনা জেলায় এবং ২০১৬ সালে ব্রাম্মনবাড়িয়া জেলায় জেলা শিক্ষা অফিসারের দায়িত্ব পালন করেন । ২০১৬ সালে মাউশির তৎকালিন মহাপরিচালক তার সততা ও দক্ষতার কারনে মহাপরিচালক মহোদয়ের নিজ জেলা ব্রাম্মনবাড়িয়ায় তাকে বদলী করে নিয়ে যান। ২০১৭ সালে জেলা শিক্ষা অফিস বরিশাল এর জেলা শিক্ষা অফিসার পদটি শূন্য হলে তাকে বরিশাল জেলায় বদলী করা হয় । বরিশাল জেলা শিক্ষা অফিসকে সভা করে ঘুষ ও দূনীতি মুক্ত ঘোষনা করেন । ইতো পূর্বে অনলাইন এম পি ও তে শিক্ষকদের র্হাডকপি জমা দিয়ে হয়রানির স্বীকার হতে হলে ও তিনি র্হাডকপি জমা দান প্রক্রিয়া রোধ করে অনলাইন এম পি ও দূনীতি মুক্ত করেন। এতে শিক্ষকরা দূনীতি থেকে মুক্তি পান । একজন দক্ষ ও সৎ অফিসার হিসেবে তিনি সারা বাংলাদেশে শিক্ষা মহলে পরিচিত। বর্তমান চলতি মাসে বরিশাল জেলায় ২৪ টি নতুন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এর এম পি ও ভুক্তির কাগজ পত্র মাউশিতে প্রেরনের নির্দেশনা আসলে তিনি ২৪ টি নতুন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এর প্রধানদের নিয়ে সভা করে সবাই কে বলে দেন এ বিষয়ে কোথাও কোন অনৈতিক আর্থিক লেনদেন না করার জন্য । ফলে ২৪ টি নতুন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এর এম পি ও ভুক্তির জন্য জেলা শিক্ষা অফিসে কোন র্দুভোগ হয় নি। তিনি ২০১৭ সালে যোগদানের পর এখন পর্যন্ত কয়েক হাজার শিক্ষকের অনলাইন এম পি ও করেন যেখানে কোন শিক্ষক কেই জেলা শিক্ষা অফিসে আসতে হয়নি । এই বিশাল অনলাইন এম পি ও কার্যক্রম তিনি অফিস টাইমের পরে একাকি করেন । সততার মূর্ত প্রতীক জেলা শিক্ষা অফিসার কে এই কাজ গুলো একাই করতে হয় কারন ৭৫০টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সম্বলিত এই অফিসে ৪ টি অফিস সহকারী পদ থাকলেও সকল পদই এখন শূন্য । ঘুষ দূর্নীতিতে সুবিধা করতে না পারায় তিনি যোগদান করার পরে সবাই বদলি হয়ে চলে গেছেন । জানা যায় বার বার শিক্ষা অধিদপ্তরে আবেদন করা স্বত্তেও এখানে কোন অফিস সহকারী প্রদান করা হয়নি । ফলে ৭৫০টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সম্বলিত এই জেলায় তিনিই অফিস সহকারী এবং তিনিই অফিসার ।
বরিশালে এমন একজন শিক্ষা অফিসারের বিরুদ্ধে উঠে পড়ে লেগেছে একটি মহল। তার বিরুদ্ধে মনগড়া অভিযোগ তুলে হয়রানীর চেষ্টা করা হচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঘুষ ও দুনীতির বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষনাকারী এই জেলা শিক্ষা অফিসারকেই একটি মহল যারা তার জন্য ঘুষ ও দুণীতি করতে পারছেন না তারা তাকে দুনীতি বরপুত্র বানিয়ে এখান থেকে বদলীর পায়তারা করছে আবার যাতে বরিশাল জেলা শিক্ষা অফিসে ঘুষের মহড়া শুরু করা যায় । পরীক্ষায় সম্মানী বানিজ্য করার নামে একটি মহল অপপ্রচার চালালেও অধিকাংশ পরীক্ষা কেন্দ্রের কেন্দ্র প্রধানরা জানান তারা জেলা শিক্ষা অফিসারকে তার যোগদান কালের পর থেকে এ বিষয়ে কোন সম্মানী দেননি । বরিশালে ৬১টি পরীক্ষা কেন্দ্রের মধ্যে তিনি পরিদর্শনের দায়িত্ব পান মাত্র ১৮টির। অথচ ঐ চক্রটি সাংবাদিকদের ভুল তথ্য প্রদান করে সংবাদ প্রকাশ করেছে যে তিনি ৬১টি কেন্দ্র থেকে দেড় লক্ষ টাকা সম্মানি গ্রহন করেছেন। গতকাল একটি জাতীয় দৈনিকে বরিশাল জেলা পশসকের যে বক্তব্য প্রকাশ হয়েছে তাতে স্পষ্ট, পরীক্ষা পরিদর্শনের যে বাজেট প্রনয়ন করা হয় তা জেলা প্রশাসন থেকেই করা হয়। সেই পরিদর্শন টিমের একজন সদস্য হন জেলা শিক্ষা অফিসার। পিরদর্শনের জন্য সম্মানি বাজেটও জেলা প্রশাসন থেকে করা হয়। অথচ পুরো বিষয়টি জেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ আনোয়ার হোসেনর কাধে চাপিয়ে তার সম্মান ক্ষুন্ন করার চেষ্টা করা হচ্ছে। সাধারণ শিক্ষকদের বক্তব্য বিগত ২০-২৫ বছরে তার মতো সৎ ও দক্ষ অফিসার এ জেলায় আসেনি তিনি সম্মানী বানিজ্য কোন করবেন যেখানে অনলাইন এম পি ও তে তিনি কোন দুনীতি করেন না । এ ধরনের দক্ষ ও সৎ অফিসারের বরিশালে সেবাদানের সুযোগ হয়তো একদিন এই মহলের অপচেষ্টায় সংকুচিত হয়ে যাবে । সচেতন সকলের এ বিষয়ে সর্তক থাকা ও সহযোগিতার প্রয়োজন।

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর

হালিমা খাতুন স্কুলের ভর্তি বিজ্ঞপ্তি, বরিশাল







ফেসবুক কর্নার

শিরোনাম
নিষেধাজ্ঞায় পড়তে যাচ্ছে বার্সা-রিয়ালসহ ১২টি লকডাউন আরও এক সপ্তাহ বাড়ানোর সুপারিশউজিরপুরে সাতলার পটিবাড়ি ৯০০ বিঘা জমিতে মাৎস্দুমকিতে ডায়রিয়ায় শিশুসহ ৪ জনের মৃত্যুঅনলাইন প্রেসক্লাব বরিশাল’র কমিটি ঘোষণা, সভাপ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ড ১০২ জনের মৃত্যুবরিশালে বসছে দুই শতাধিক সিসি ক্যামেরামাওলানা মামুনুল হক গ্রেপ্তারবাউফলে স্বামীর চোখ তুলে নিলো স্ত্রী ও তার প্রপুরো পরিবারসহ করোনায় আক্রান্ত প্রখ্যাত চিকিলকডাউনে কাজ না পেয়ে রাঙাবালীতে দিনমজুরের গলাজানাজা শেষে বনানী কবরস্থানে সমাহিত হবেন কবরীসুদের তিনগুণ টাকা-জমি দিয়েও প্রাণ গেল স্ত্রীটিকার তৃতীয় ডোজও নেয়া লাগতে পারেএকদিনে ১০১ জনের মৃত্যুতে নয়া রেকর্ড
%d bloggers like this: